২৮ অক্টোবর ২০২০ ইং, ১৩ কার্তিক ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম:
নরসিংদীতে কনস্টেবল হতে এএসআই পদে সদ্য পদোন্নতি প্রাপ্ত সদস্য কে র‌্যাংক ব্যাচ ব্যাজ পরিয়ে দিচ্ছেন ,পুলিশ সুপার মাধবদীতে ডোবা থেকে অজ্ঞাত যুবকের লাশ উদ্ধার নরসিংদীতে শারদীয় দুর্গাপূজায় সকলকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে উৎসব করার জন্য জেলা পুলিশের আহ্বান মাধবদীতে পূজামন্ডপ পরিদর্শনে নরসিংদী জেলা প্রশাসক সৈয়দা ফারহানা কাউনাইন শিবপুরে পূজামণ্ডপ পরিদর্শন করেন সাবেক এমপি সিরাজুল ইসলাম মোল্লা

মাধবদীতে পৌরসভার পক্ষ থেকে ১৭টি দূর্গা পূজা মন্ডপে নগদ অর্থ প্রদান

  নরসিংদীর সংবাদ

সুমন পাল, মাধবদী (নরসিংদী) প্রতিনিধিঃ
“ধর্ম যার যার উৎসব সবার” এই প্রতিপাদ্যকে ধারণ করেই নরসিংদী সদর উপজেলার মাধবদী পৌর এলাকা ও আশপাশের ইউনিয়নের প্রায় ১৭ টি দূর্গা পূজা মন্ডপের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের হাতে মাধবদী পৌরসভার পক্ষে পৌর মেয়র হাজী মোঃ মোশাররফ হোসেন প্রধান মানিক নগদ দশ হাজার টাকা করে মোট ১লক্ষ সত্তোর হাজার টাকা তুলে দেন আজ সকাল সাড়ে ১১ টায় মাধবদী পৌরসভার হলরুমে।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন মাধবদী পৌর সচিব কাজী মোস্তফা কামাল মনির, পৌর হিসাব রক্ষক মোঃ মাহমুদুল হাসান, প্যানেল মেয়র গৌতম ঘোষ, সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর মায়া রাণী দেবনাথ, মাধবদী শহর পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি শংকর দেবনাথ। পূজা কমিটির হাতে নগদ অর্থ তুলে দেয়ার পূর্বে পূজা কমিটির নেতৃবৃন্দদের উদেশ্যে মাধবদী পৌর মেয়র হাজী মোঃ মোশাররফ হোসেন প্রধান মানিক আসন্ন দূর্গা পূজায় মাদকের ব্যাপারে কঠিন হুসিয়ারী দিয়ে বলেন “যে মুখে আপনাদের প্রতিমা কে মা বলে ডাকেন সে মুখে মাদককে না বলুন”। পূজা চলাকালীন সময়ে যে সব মন্দিরের আশপাশে মাদক বেচা কেনা ও মাদক সেবন করা হবে সে সব মন্দিরে আমি পরিদর্শনে যাব না এবং জেলা প্রশাসককে অনুরোধ জানাব সেই সব মন্দির যেন বন্ধ করে দেওয়া হয়। এ সময় তিনি পূজা কমিটি সকলের উদেশ্যে নির্দেশনা দেন আগত সকলের মাস্ক ব্যবহার নিশ্চিত করা ও হাত ধোয়ার ব্যবস্থা রাখার। আরো ঘোষনা করেন যে প্রতিটি পূজা মন্ডপে তিনি ৩শত করে মাস্ক বিনা মূল্যে প্রদান করবেন। সরকারী নির্দেশনা মোতাবেক পূজা মন্ডপ থেকে নারী ও পুরুষদের আলাদা প্রবেশ পথ তৈরী করতে হবে। পূজায় উপস্থিত সকলকে সামাজিক দুরত্ব (দুই হাত) বজায় রেখে চলতে হবে। পুস্পাঞ্জলী প্রদানের সময় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। সর্দি জ্বর ও কাশি নিয়ে কেউ পূজা মন্ডপে প্রবেশ করবেন না। প্রসাদ বিতরন আরতী প্রতিযোগীতা ধুনচি নাচ ও শোভাযাত্রা থেকে বিরত থাকতে হবে। ধর্মীয় উপাসনা ছাড়া অন্যান্য সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান বন্ধ রাখতে হবে। যে সব মন্দিরে মেয়র আর্থিক অনুদান দিয়েছে শ্রী শ্রী গৌড় নিতাই আখড়া কাশিপুর, শ্রী লোকনাথ আশ্রম কাশিপুর, স্বপন সাধুর বাড়ি ছোট মাধবদী, পরেমেশ্বর বাড়ি ছোট মাধবদী, শ্রী শ্রী শিতলা বাড়ি মন্দির, শ্রী শ্রী রাধা কৃষ্ণ মন্দির আনন্দী, আনন্দী ঋষি পাড়া কালি মন্দির পুর্ব, আনন্দী ঋষি পাড়া কালি মন্দরি পশ্চিম, আনন্দী কৈপত পাড়া শিব মন্দির, গোবিন্দ সাহার বাড়ি আনন্দী, নওপাড়া মানিক মিত্রের বাড়ি, লোকনাথ মন্দির নওপাড়া আশ্রম, বিরামপুর কালি বাড়ি মন্দির, বালাপুর চন্ডি বাড়ি মন্দির, বালাপুর বড় বাড়ি মন্দির ও রাধা রানীর মন্দির আলগী। এসময় উপস্থিত পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকরা পৌর মেয়রকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন আমরা আপনার পক্ষ থেকে অনুদান পেয়ে খুবই আনন্দিত। মাধবদী পৌর শহরের উন্নয়নের চিত্র তুলে ধরে আরো বলেন আমরা আগামী নির্বাচনে আপনাকে বিজয়ী হিসেবে দেখতে চাই আমরা সার্বিক ভাবে আপনার জন্য কাজ করে যাবো।

প্রতিদিনের খবর পড়ুন আপনার ইমেইল থেকে
ওপরে